বুধবার   ০৪ আগস্ট ২০২১   শ্রাবণ ২০ ১৪২৮   ২৫ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

কম বাজেটে সিনেমা নির্মাণের দিকে ঝুঁকছেন নির্মাতারা

বিনোদন ডেস্ক

প্রকাশিত: ১১ ডিসেম্বর ২০২০  

করোনাভাইরাসের কারণে দীর্ঘদিন বন্ধ ছিল সিনেমা হল। অন্যদিকে সিনেমা হল খুললেও দর্শকরা সিনেমা হলে যাচ্ছেন না, ফলে অনেক পরিচালক সিনেমা মুক্তি দিচ্ছেন না। অন্যদিকে সিনেমা নির্মাণের বাজেটেও কাটছাঁট করা হচ্ছে। খোঁজ নিয়ে জানা যায়, কম বাজেটে সিনেমা নির্মাণের দিকে ঝুঁকছেন নির্মাতারা।

আগে যেখানে শাকিব খানের সিনেমার বাজেট ছিল ২ কোটির ওপর। এখন সে বাজেট কমে গিয়ে এক থেকে দেড় কোটিতে নেমেছে। আর বেশিরভাগ মুভি নির্মাণ হচ্ছে ৪০ থেকে ৮০ লাখে। এমনকি কেউ কেউ ওয়েব ফিল্ম নাম দিয়ে ৩০ লাখ টাকাতেও সিনেমা নির্মাণ করছেন।

সম্প্রতি চিত্রনায়ক ইমন ও নায়িকা নিশাত নাওয়ার সালওয়াকে নিয়ে বীরত্ব মুভির শ্যুটিং করা হয়। পরিচালক সাইদুল রানা বলেন, প্রথমে ২ কোটি টাকা মুভির বাজেট ধরা হয়েছিল। এখন ১ কোটি ২০ লাখ টাকার মধ্যে শ্যুটিং শেষ করার চেষ্টা করছি।

পরিচালক মালেক আফসারী আগে কোটি টাকার ওপরের বাজেটে সিনেমা নির্মাণ করলেও এবার ৭০ থেকে ৮০ লাখ টাকায় সিনেমা নির্মাণ করছেন। জানা যায়, তার নতুন সিনেমা ‘ধামাকা’র বাজেট আনুমানিক ৭০ লাখ টাকা। দেড় কোটি টাকায় ‘দেশা দ্য লিডার’ নির্মাণ করেছিলেন সৈকত নাসির। তিনি এবার ‘বর্ডার’ মুভির শ্যুটিং শেষ করেছেন প্রায় ৬০ লাখ টাকায়।

পরিচালক মোস্তাফিজুর রহমান মানিকও কম বাজেটে সিনেমা নির্মাণ করছেন। তার নির্মীয়মাণ ‘স্বপ্নে দেখা রাজকন্যা’ সিনেমার বাজেট অনেক কম। অঙ্ক না বললেও তিনি বলেন, ‘এ পরিস্থিতিতে কম বাজেটে সিনেমা বানানো ছাড়া উপায় নেই। কম বাজেটেও শক্তিশালী গল্প নির্মাণ করাই এখন পরিচালকদের চ্যালেঞ্জ।’

নব্বইয়ের জনপ্রিয় নির্মাতা মনতাজুর রহমান আকবরও বর্তমান প্রেক্ষাপটের কথা চিন্তা করে কম বাজেটে সিনেমা নির্মাণ করছেন। এখন ২৫ থেকে ৩৫ লাখ টাকা বাজেটের মধ্যে নির্মাণ করছেন একের পর এক মুভি। ‘কাজের ছেলে’ ও ‘আয়না, সিনেমার শ্যুটিং ইতিমধ্যেই শেষ করেছেন তিনি।

আকবর বলছিলেন, ‘বাজেটের দিকে তাকিয়ে থাকলে এখন আর সিনেমা বানানো যাবে না। এখন কম হোক বেশি হোক কাজ করা দরকার। একটা কাজ মানেই পরিচালক, শিল্পী, টেকনিশিয়ানদের ঘরে কিছু টাকা যাওয়া। করোনার মধ্যে না খেয়ে মরার চেয়ে অল্প টাকায় কাজ করে খেয়ে বেঁচে থাকায় উত্তম বলে মনে করছি।’

এদিকে অপু বিশ্বাস ও বাপ্পী অভিনীত ‘প্রিয় কমলা’ সিনেমার বাজেটও কম। অন্যদিকে অপু বিশ্বাস, নিরব ও নওশাবা সম্প্রতি কাজ করেছেন ‘ছায়াবৃক্ষ’ সিনেমায়। বন্ধন বিশ্বাস পরিচালিত এ সিনেমাটির বাজেটও কম।

সিনেমার বাজেট কমার সঙ্গে সঙ্গে নায়ক-নায়িকা ও টেকনিশিয়ানরাও নিজেদের পারিশ্রমিক কমিয়েছেন। যেসব তারকা পারিশ্রমিক কমিয়েছেন তারা হলেন শাকিব খান, মাহিয়া মাহি, নুসরাত ফারিয়া, বাপ্পী চৌধুরী, মিশা সওদাগর, বিদ্যা সিনহা মিম, পূজা চেরি প্রমুখ।

এ প্রসঙ্গে চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির মহাসচিব বদিউল আলম বলেন, ‘করোনার কারণে ইন্ডাস্ট্রির অনেক ক্ষতি হয়েছে। প্রযোজকরা বাজেট কমিয়ে দিয়েছেন। ভালো বিষয় যে, আমাদের শিল্পী ও টেকনিশিয়ানরাও অনেকে পারিশ্রমিক কমিয়েছেন। আমি মনে করি কম বাজেটে বেশি সিনেমা নির্মাণ করে ইন্ডাস্ট্রিকে সচল রাখতে হবে। ইন্ডাস্ট্রি সচল থাকলে সবকিছুই একসময় স্বাভাবিক হয়ে উঠবে।’

স্টার ভয়েস ২৪
স্টার ভয়েস ২৪
এই বিভাগের আরো খবর